বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:৪১ পূর্বাহ্ন

খবরের শিরোনাম :
বিএনপি’র বিভাগীয় সমাবেশের দু’দিন আগেই রংপুরে পরিবহন ধর্মঘটের ঘোষনা মটর মালিক সমিতি। ধর্মঘট উপেক্ষা করে রংপুরে বিভাগীয় সমাবেশ সফল করার ঘোষনা বিএনপি’র, সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন ব্যবসার পরিবেশ দিয়েছি, আপনারা দেশের কথা ভাবুন— ব্যবসায়ীদের প্রধানমন্ত্রী আ.লীগ প্রার্থীকে হারিয়ে জাপা নেতা জয়ী হারাগাছে মাদ্রাসার কাজ বন্ধ করে দেয়ার অভিযোগ বহিষ্কৃত সেনা সদস্যের বিরুদ্ধে। সমাধান দিলো পুলিশ, হরিজন সেই কিশোরকে মিষ্টি খাওয়ানো হলো রংপুর সিটি নির্বাচনে মোস্তফাকে জাপার মেয়র প্রার্থী ঘোষণা রংপুর পৌরসভার সাবেক মেয়র আব্দুর রউফ মানিককে জাপা থেকে অব্যাহতি পছন্দের ছেলেকে বিয়ে করায়, পরিবারের হয়রানি থেকে বাঁচতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন দম্পতি পাগলাপীর বাইক রাইডার্স এর মাধ্যমে নিরাপদ বৃদ্ধাশ্রমে খাবার বিতরণ।
গাইবান্ধায় মৃত্যুরপর দাফন করা বাছিরন বেওয়া জীবিত ফিরে এসেছেন বলে দাবী পরিবারের!

গাইবান্ধায় মৃত্যুরপর দাফন করা বাছিরন বেওয়া জীবিত ফিরে এসেছেন বলে দাবী পরিবারের!

নিউজ ডেক্সঃ

গাইবান্ধায় ৯ মাস আগে মারা যাওয়া বাছিরন বেওয়া (৯২) নামে এক নারী জীবিত অবস্থায় ফিরে এসেছেন বলে দাবি করেছে তার পরিবার। এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।

বুধবার (১১ মে) ওই নারীকে দেখতে জেলা শহরের ডেভিড কোম্পানি পাড়ায় তার মেয়ে মাজেদা বেগমের বাড়িতে শত শত মানুষ ভিড় করেন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি শান্ত করে এবং ওই নারীকে তাদের হেফাজতে নেন।

জানা যায়, প্রায় ৯ মাস আগে ওই এলাকার আনিসুর রহমানের স্ত্রী বাছিরন বেওয়া মারা যান। পরে আত্মীয়স্বজন ও এলাকাবাসী যথারীতি জানাজা শেষে গাইবান্ধা পৌর কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন করেন। তবে গত দুদিন আগে মারা যাওয়া বাছিরন বেওয়ার সাদৃশ্যে এক মহিলাকে গাইবান্ধা রেল ষ্টেশন চত্বরে ঘোরাফেরা করতে দেখা যায়। এমন খবরে বাছিরন বেওয়ার মেয়ে মাজেদা বেগম ওই নারীকে তার বাড়িতে নিয়ে যান। এসময় ওই নারীও নিজেকে বাছিরন বেওয়া দাবি করেন।

বাছিরন বেওয়া ফিরে এসেছেন এমন খবরে আত্মীয়স্বজনরা তাকে একনজর দেখতে ভিড় করেন। এদের মধ্যে, কেউ বলছেন এই মহিলাই বাছিরন বেওয়া। আবার কেউ বলছেন, এটা বাছিরন না অন্য কোনো মহিলা।

স্থানীয় বাসিন্দা শফিকুল ইসলাম রুবেল বলেন, ‘মৃত ব্যক্তি কখনই ফিরে আসতে পারে না। এর পেছনে অন্য কোনো কারণ থাকতে পারে।’

এলাকাবাসী জানান, বাছিরন বেওয়ার মতো দেখতে বলে তার মেয়ে মাজেদা ওই মহিলাকে বাড়ি নিয়ে যায়। কিন্তু ওই মহিলা তার মা নয়।

গাইবান্ধা পৌর কবরস্থানের গোরখোদক টুলু মিয়া বলেন, ‘ধর্মীয় বিধানে মারা যাওয়ার পর কেউ আর জীবিত অবস্থায় ফিরে আসতে পারে না। এর সঙ্গে বাস্তবের কোনো মিল নেই।’

গাইবান্ধা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অপারেশন জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ‘ওই নারীকে আমাদের হেফাজতে নিয়েছি। তার পরিচয় জানার চেষ্টা চলেছে।’

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

© ২০১০-২২ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | দৈনিক মায়াবাজার.কম
Developed BY Rafi It Solution